পাসপোর্ট করার নিয়ম – সহজেই পাসপোর্ট আবেদন শিখে নিন নিজেই -2022

পাসপোর্ট করার নিয়ম

পাসপোর্ট করার নিয়মঃ বিদেশে ভ্রমন কিংবা সরকারী যে কোনো গুরুত্বপূর্ণ কাজে অনেকের প্রয়োজন পরে একটি পাসপোর্ট এর।  বিশেষ করে,  আমাদের দেশে পাসপোর্ট ছাড়া আপনি কোনো দেশে বৈধ ভাবে যেতে পারবেন না।  পাসপোর্ট করা কে অনেকেই আবার ঝামেলা মনে করেন।  বিভিন্ন লোক বা দালাল ধরে পাসপোর্ট করতে যেয়ে পরে পড়তে হয় নানারকম সমস্যায়।  

দালাল ছাড়া পাসপোর্ট করার নিয়ম সম্পর্কে অনেকেই জানেন না।  কিন্তু আপনি কি জানেন? আপনার পাসপোর্ট আপনি নিজেই ঘরে বসে অনলাইনে আবেদন,  ফর্ম উত্তোলন ও পূরণ,  ইত্যাদি সব কিছু করতে পারবেন?  যদি আপনার পাসপোর্ট আপনি নিজেই তৈরি করতে চান দালাল ছাড়া তাহলে পাসপোর্ট করার নিয়ম পোষ্ট টি আপনার জন্য।  

পাসপোর্ট করার নিয়ম 

পাসপোর্ট করতে হলে আপনাকে অনলাইনে ১ টি ফর্ম পূরন করে প্রাথমিক ধাপের আবেদন সম্পন্ন কর‍তে হবে।  এর পরে আপনাকে একটি ফর্ম ডাউনলোড করে নিয়ে সেটাকে হাতে লিখে পূরণ করতে হবে।  ব্যাংক থেকে টাকা সেন্ড করে সেটার রশিদ ও আপনার ছবি ফর্মে আঠা দিয়ে লাগিয়ে নিতে হবে।  

আরো পড়ুনঃ ৫০ হাজার টাকায় ব্যবসা – সেরা লাভজনক ৭ টি ব্যাবসার আইডিয়া 2022

এর পরে আপনার ফর্ম নিয়ে পাসপোর্ট অফিসে গিয়ে ফর্ম জমা দিতে হবে ও হাতের আংগুলের ছাপ ও ছবি করে বায়োমেট্রিক প্রসেস টি সম্পন্ন করতে হবে। এর পরে আপনাকে একটি স্লিপ কার্ড প্রদান করা হবে।  স্লিপে আপনার পাসপোর্ট কবে নাগাদ হাতে পাবেন সেই তারিখ টি লেখা থাকবে। এর পরে সকল কিছু যদি সঠিক ভাবে থাকে তাহলে ১৪-১৬ দিনের মধ্যে আপনার পাসপোর্ট টি হাতে পেয়ে যাবেন।   তো চলুন এবার ধাপে ধাপে জেনে নেই প্রথমিক আবেদন থেকে কিভাবে সব কিছু সম্পন্ন করে নিবেন – 

১- পাসপোর্ট করার জন্য অনলাইন আবেদন করার নিয়ম

পাসপোর্ট করার জন্য প্রথমিক ধাপে আপনাকে অনলাইনের মাধ্যমে আবেদন করতে হবে।  অনলাইনে আবেদন এর জন্য নিচের ধাপ অনুযায়ী কাজ করুনঃ- 

১ম ধাপ–  পাসপোর্ট আবেদন করার জন্য প্রথমেই আপনাকে পাসপোর্ট এর অফিসিয়াল ওয়েবসাইটের লিংকে প্রবেশ করতে হবে- (http://passport.gov.bd/) অথবা এখানে ক্লিক করে সরাসরি চলে যান। 

২য় ধাপ- এর পরে একটু নিচের দিকে স্ক্রল করলে দেখতে পাবেন “Continue to online enrollment” সেখানে ক্লিক করতে হবে।  তার উপরে টার্মস এন্ড কন্ডিশন পড়ে ” I agree” তে টিক মার্ক করে দিবেন।  

৩য় ধাপ- এবার নিচের মত একটি ফর্ম দেখতে পাবেন। এই ফর্ম টি

পাসপোর্ট করার নিয়ম
পাসপোর্ট করার নিয়ম

আপনাকে সঠিক তথ্য দিয়ে পূরণ করতে হবে।  

ফর্মের তথ্য গুলো যেভাবে বুঝবেন– 

Applying Form: এখানে আপনাকে “Bangladesh” সিলেক্ট করে দিতে হবে। 

Application Type: আপনি যদি নতুন এপ্লিকেশন করেন তাহলে এখানে “New application” অপশন টি সিলেক্ট করে দিবেন।  

Passport Type: এই অপশনে আপনাকে আপনার পাসপোর্ট কোন টাইপের চান সেটা সিলেক্ট করে দিবেন।  

আরো পড়ুনঃ পশ্চিম দিকে পা দিয়ে ঘুমানো জায়েজ আছে কিনা জেনে নিন – 2022

Delivery Type: এই অপশনে আপনার পাসপোর্ট যদি দ্রুত সময়ে হাতে পেতে চান তাহলে Express অপশন সিলেক্ট করুন ( জরুরি পাসপোর্ট অতিরিক্ত ফি দিতে হবে) ।  আর নিয়মিত সময়ে পেতে চাইলে Regular অপশন টি বেছে নিবেন।  

Personal Information: এই অপশনে আপনার ব্যক্তিগত তথ্য গুলো দিতে হবে।  যেমন- আপনার নাম, জন্মতারিখ, উচ্চতা ইত্যাদি।  অবশ্যই তথ্য গুলো যেন সঠিক হয় সেদিকে খেয়াল রাখবেন।

Name of application: এ অপশনে আপনার নিজের জন্য যদি আবেদন করেন তাহলে আপনার নাম টি লিখতে হবে।  নামের বানান এর ক্ষেত্রে শুধু হাইফেন (-) এটি ব্যবহার করা যাবে।  

First Name And Last name: এখানে আপনাকে আপনার নামের প্রথম টুকু লিখে দিতে হবে।  যদি আপনার নাম হয় ( MD ABUL HASAN) তাহলে প্রথম অংশ হবে (MD ABUL) ও শেষ অংশ হবে (HASAN)। 

Gurdian : এই অপশনে আপনার যদি আইনগত গার্ডিয়ান থেকে থাকে তাহলে এই অপশনে টিক মার্ক দিতে হবে।  পাশাপাশি নতুন অপশনে আপনার পিতা-মাতার নাম,  প্রফেশন, ন্যশন্যালিটি ইত্যাদি দিতে হবে।  

Spouses Name: আপনি যদি বিবাহিত হয়ে থাকেন তাহলে এখানে আপনার স্বামি/ স্ত্রী এর নাম লিখতে হবে।  

Spouses Nationality: এখানে আপনার স্বামি/স্ত্রী এর জাতীয়তা সিলেক্ট করতে হবে। 

Spouses profession: এখানে আপনার স্বামি বা স্ত্রী কি কাজ করে সেটা দিতে হবে।  

Martial statues: আপনি বিবাহিত, ডিবোর্স,  নাকি সিংগেল সেটা দিতে হবে৷ 

Date of birth: এখানে আপনার জন্ম তারিখ সঠিক ভাবে দিতে হবে। 

Birth ID number: এখানে আপনার জন্ম আইডি নাম্বার যদি থাকে তবে সেটা দিতে হবে। 

আরো পড়ুনঃ পড়াশোনায় মনোযোগী হওয়ার ইসলামিক উপায় – কীভাবে মনোযোগী হবেন? 2022

TIN ID number: আপনার যদি টিন আইডি নাম্বার থাকে তবে সেটা দিতে হবে। 

Height: এখানে আপনার উচ্চতা সেন্টিমিটার ও ইঞ্চিতে দিতে হবে। 

Citizenship Information : আপনার জাতীয়তা নির্বাচন করে দিতে হবে, আপনার বর্তমান ঠিকানা,  কোথায় থাকেন,  আপনার জাতীয় পরিচয়পত্রের নাম্বার ইত্যাদি দিতে হবে সঠিক হবে৷ এর পরে “Save now & continue in the future” অপশনে ক্লিক করতে হবে। এর পরে নিচের মত একটি ইউন্ডো আসবে সেখানে “Ok”  বাটনে ক্লিক করে দিন। 

পাসপোর্ট করার নিয়ম
পাসপোর্ট করার নিয়ম

এ পর্যন্ত আপনার প্রথম স্টেজ এর কাজ শেষ। আপনার দেয়া ইমেইল এড্রেসে একটি এপলিকেশন আইডিপাসওয়ার্ড চলে যাবে৷  যেটা দিয়ে লগ ইন করে আপনার আবেদন এর অবস্থা দেখতে পাবেন।  আবেদন সঠিক ভাবে সম্পন্ন হয়েছে কিনা সব দেখা যাবে৷  এর পরে লগ ইন করে আপনার পূর্বে দেয়া তথ্য গুলো পূনরায় এডিট করতে পারবেন।

ও ডাউনলোড ফর্মের মাধ্যমে আপনি ফর্ম টি ডাউনলোড করে প্রিন্ট করে হাতে লিখে সম্পন্ন করেও জমা দিতে পারবেন।  “সেভ ও নেক্সট” ক্লিক করে পরবর্তী ধাপ গুলোতে চলুন-

৪র্থ ধাপ- এই অংশে নিচের মত আরেকটি ফর্ম দেখতে পাবেন যেটা কে পূরণ করতে হবে সঠিক ইনফরমেশন দিয়ে৷

পাসপোর্ট করার নিয়ম
পাসপোর্ট করার নিয়ম

ফর্মে যে অংশ গুলো যেভাবে পূরণ করবেন- 

Application Contact Information: এই স্থানে আপনার বাসার নাম্বার,  এড্রেস,  সচল মোবাইল নাম্বার প্রদান করতে হবে। 

Emergency contact Persons Details: এই অপশনে জরুরি প্রয়োজনে আপনাকে যদি না পাওয়া যায় তাহলে কার সাথে যোগাযোগ করলে আপনাকে পাওয়া যাবে। তার যোগাযোগ নাম্বার ও এড্রেস দিতে হবে, নাম ও পূর্নাঙ্গ ডিটেইলস লিখতে হবে। 

Old Passport Information: এই অপশনে আপনার যদি পূর্বে কোনো পাসপোর্ট করা থাকে তবে সেটার ডিটেইলস দিতে হবে।  আর যদি না থাকে তাহলে স্কিপ করে যাবেন।  

আরো পড়ুনঃ মন আর মস্তিস্ক এর মধ্যে পার্থক্যটি কী ? বিস্তারিত জেনে রাখুন

Payment Information: এই স্থানে আপনাকে পেমেন্ট এর তথ্য দিতে হবে।  টাকার পরিমান, কবে নাগাদ পে করবেন, ব্যাংকের রিসিপট নাম্বার,  ব্যাংকের নাম, বাংকের শাখা নাম,  ইত্যাদি লিখে দিতে হবে।  

এর পরে “Save & Next” অপশনে ক্লিক করে দিন।  আপনার ২য় স্টেজের কাজ ও শেষ।  এবার আপনার আবেদন প্রিন্ট কপি টি ডাউনলোড করে রঙিন প্রিন্ট করতে হবে।  

পাসপোর্ট করার নিয়ম
পাসপোর্ট করার নিয়ম

প্রিন্টের পর আপনার নাম হাতে বা টাইপ করে লিখে দিতে হবে।  এখানে উল্লেখ্য যে,  প্রিন্ট এর পর মাত্র ১৪ দিন আপনার তথ্য অনলাইনে থাকবে।  তাই পাসপোর্ট অফিসে জমা দিবেন ১৪ দিনের পূর্বেই।  অন্যথায় আবার আপনাকে আবেদন করতে হবে। 

৫ম ধাপ– এবার প্রিন্টকৃত ফর্মে আপনার ছবি ও ব্যাংকের পেমেন্ট এর রশিদ আঠা দিয়ে লাগিয়ে নিবেন।  তারপরে আপনার আসে পাশে কোনো পাসপোর্ট অফিসে গিয়ে এটি জমা দিতে হবে।  

৬ষ্ঠ ধাপ– পাসপোর্ট অফিসে জমা দেয়ার পরে আপনার বায়োমেট্রিক পদ্ধতি যেমন( আংগুলের ছাপ, ও ছবি সম্পন্ন করতে হবে)।  এর পরে আপনাকে একটি স্লিপ দেয়া হবে।  যার মধ্যে লেখা থাকবে কবে নাগাদ আপনার পাসপোর্ট টি হাতে পাবেন।  

আরো পড়ুনঃ ডিপ্রেশন থেকে মুক্তির উপায় – মানুষিক অবসাদ থেকে মুক্তির উপায় 2022

পাসপোর্ট করতে কি কি কাগজ-পত্র লাগে

পাসপোর্ট এর আবেদন এর জন্য প্রয়োজনীয় কিছু ডকুমেন্টস এর প্রয়োজন পরবে। 

  1. ন্যাশনাল আইডি কার্ড যদি এন আইডি কার্ড না থাকে তবে জন্মনিবন্ধন এর সনদ 
  2. পূর্বের বিদ্যুৎ বিল এর কপি 
  3. পাসপোর্ট সাইজের ১ কপি ছবি 
  4. ব্যাংক পেমেন্ট  রশিদ

পাসপোর্ট ফি কত ২০২২ 

পাসপোর্ট আবেদন এর সময় আপনাকে নির্ধারিত পরিমান ফি জমা দিতে হবে।  ফি এর পরিমান নির্ভর করে আপনি জরুরী ভাবে নিতে চান নাকি নরম্যাল সময়ে নিতে চান সেটার উপরে। পূর্বে সরকারি চাকরি করেছেন বা বর্তমানে সরকারি চাকরি করতেছেন তাহলে সাধারণ ফি নেয়া হবে।  তবে অবশ্যই সেটার ডকুমেন্টস দেখাতে হবে। নিচে পাসপোর্ট অফিস থেকে নির্ধারিত ফি দেখে নিন- 

  • জরুরি ফিস ৭ দিনের মধ্যে করতে চাইলে নির্ধারিত ফি ৬০০০.০০ + ১৫% ভ্যাট = ৬৯০০.০০ টাকা।  
  • সাধারণ ফিস ২১ দিনের মধ্যে করতে চাইলে নির্ধারিত ফি ৩০০০.০০ + ১৫% ভ্যাট = ৩৪৫০.০০ টাকা। 
  • অনাপত্তি সনদ (NOC) এর ভিত্তিতে জরুরি সুবিধাসহ নির্ধারিত  ফি ৩০০০.০০ + ১৫% ভ্যাট = ৩৪৫০.০০ টাকা।  
  • সরকারি আদেশ (GO) এর ভিত্তিতে চিকিৎসা, হজ্জ্ব পালন ইত্যাদি এর ক্ষেত্রে নির্ধারিত  ফি ৩০০০.০০ + ১৫% ভ্যাট = ৩৪৫০.০০ টাকা
  • সরকারি কোনো কাজের ক্ষেত্রে কোনো প্রকার ফি নেই। 

তথ্যসূত্রঃ dip.gov.bd

পাসপোর্ট এর ফি জমা দেয়ার নিয়ম

পাসপোর্ট এর দি দেয়ার জন্য আপনি নিচে দেয়া ব্যাংক গুলো থেকে সহজেই পেমেন্ট সম্পন্ন করে নিতে পারবেন – 

  1. ওয়ান ব্যাংক 
  2. সোনালি ব্যাংক 
  3. ব্যাংক এশিয়া 
  4. প্রিমিয়ার ব্যাংক 
  5. ঢাকা ব্যাংক 

পাসপোর্ট এর আবেদন পদ্ধতি দেখে নিন ভিডিও

আমাদের শেষ কথা 

পাসপোর্ট করার নিয়ম– পোষ্টে আমরা কিভাবে দালাল ছাড়া পাসপোর্ট বানাবেন সে সম্পর্কে আলোচনা করে দিলাম।  এর পরেও যদি কোথাও আপনাদের বুঝতে অসুবিধা হয়ে থাকে তাহলে আমাদের ফেসবুক পেজে যুক্ত হয়ে আমাদের কে জানাতে পারেন।  

আরো পড়ুনঃ ওয়ালটন চার্জার ফ্যানের দাম ২০২২ – দেখে নিন ওয়াল্টনের সেরা ৫ টি চার্জার ফ্যানের দাম

About admin

In a world where you can have everything. Be a giver first. My hobbies are writing , gaming, and SEO 😊

View all posts by admin →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *